বাংলা সুনির্বাচিত কৌতুক Bangla Selected Jokes

হাসলে নাকি আয়ু বাড়ে- তাই হাসুন, মন খুলে হাসুন, কারণ হাসলে হার্ট / হৃদয় / মন ভালো থাকে => আর মন ভালো- তো সবই ভালো।

অধিকাংশ জোকস অনলাইন থেকে সংগৃহীত- শুধুমাত্র আপনাদের আনন্দ বিধানের জন্যই এই প্রচেষ্টা, কাউকে ছোট বা হেয় করার উদ্দেশ্যে নয় ; তাই এ ব্যাপারে কারো কোন আপত্তি থাকলে এডমিনকে অবশ্যই জানাতে ভুলবেন না।

* * * Anupamasite-এ আপনাকে স্বাগতম। আপনার পছন্দমত যে কোন ধরনের লেখা বা কৌতুক পোস্ট করতে পারেন।   মানসম্মত লেখা নামসহ সাইটে স্থায়ীভাবে পাবলিশ করা হয় । ধন্যবাদ * * *

*
18) এক মেয়ের কাছে একটি অপরিচিত নাম্বার থেকে কল

এক মেয়ের কাছে একটি অপরিচিত নাম্বার থেকে কল আসল।
মেয়ে : হ্যালো.
ছেলে : তোমার কি কোন বয়ফ্রেন্ড আছে??
মেয়ে : হ্যাঁ আছে কিন্তু আপনি কে??
ছেলে : আমি তোর ভাই, দাঁড়া আজকে বাড়িতে আসি তোর খবর আছে!!!
কিছুক্ষণ পর মেয়েটির নিকট আবার অপরিচিত নাম্বার থেকে আরেকটি কল আসল-
মেয়ে : হ্যালো!
ছেলে : তোমার কি কোন বয়ফ্রেন্ড আছে??
মেয়ে : না।
ছেলে : তাহলে আমি কে??
মেয়ে: স্যরি স্যরি জান! আমি মনে করেছি এটা আমার ভাই।
ছেলে : আমি তোর ভাই-ই, আজ তোর একদিন কি আমার একদিন!!!


19) হায়রে ফেসবুক! !!!!

ফেসবুকের প্রতিষ্ঠাতা মার্ক জুকারবার্গ একদিন ঘুম থেকে উঠে আবিষ্কার করলেন, কেউ একজন তাঁর ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক করেছে! তৎক্ষণাৎ তিনি ফোন করলেন নিজ অফিসের এক কর্মচারীকে। ‘কত বড় সাহস! আমার আ্যাকাউন্ট হ্যাক করে! এক্ষুনি খুঁজে বের করো ওই হ্যাকারকে। এক ঘণ্টার মধ্যে আমি ওর নাম- ঠিকানা জানতে চাই।’ চিৎকার করে বললেন জুকারবার্গ। ভয়ে কাঁপতে কাঁপতে বলল কর্মচারী, ‘অবশ্যই, স্যার। আমরা এক্ষুনি তাকে খুঁজে বের করে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়ার ব্যবস্থা করছি।’
জুকারবার্গ: পুলিশের হাতে তুলে দিতে কে বলল! ওকে বলো, আমার কোম্পানিতে ভালো বেতনে ওর জন্য একটা চাকরি আছে! হায়রে ফেসবুক! !!!!


20) বাসের ভেতরের সতর্কবার্তা

বাসের এক সিটে দুই জন যাত্রী বসে আছেন। একজন এমনি বসে আছেন এবং আরেকজন সিগারেট টানছেন।
অপর যাত্রী সিগারেটখোর - কে বাসের ভেতরের একটি সতর্কবার্তা লেখা দেখিয়ে দিয়ে বললেন,"ভাই দেখেন না, লেখা আছে, ধূমপান নিষেধ?"
সেটা শুনে সিগারেটখোর আরেকটি সতর্কবার্তা লেখা দেখিয়ে দিয়ে বললেন,"আপনার কোনো অভিযোগ থাকলে চালককে বলুন।" সেটা দেখে অপর যাত্রী চালকের কাছে গিয়ে বলছে, "চালক ভাই, আমার পাশের সিটের ঐ ভদ্রলোক ধূমপান করছেন ...এবং আমার সমস্যা হচ্ছে, আপনি একটু বিষয়টা দেখবেন।" তাই শুনে চালক বাসের ভেতরের আরেকটি সতর্কবার্তা লেখা দেখিয়ে দিয়ে বললেন,"চলন্ত গাড়ীতে চালকের সাথে কথা বলবেননা।"


21) তাকে আজ ট্রেন ধরিয়ে দিয়েছি-

পুত্র : বাবা, আজ একটা ভালো কাজ করেছি।
বাবা : কী কাজ?
পুত্র : পাশের বাড়ির মোটকা ভদ্রলোক আছেন না, রোজ অফিসে যেতে ট্রেন ফেল করেন, তাকে আজ ট্রেন ধরিয়ে দিয়েছি।
বাবা : তাই নাকি! কী করে?
পুত্র : প্রতিদিনের মতো তিনি হেলেদুলে হেঁটে চলছিলেন, লালুকে (বাঘা কুকুর) লেলিয়ে দিলাম তার পেছনে। ব্যস এমন ছোটা ছুটলেন


22) ও তো আপনাকে কবর দিতে--

এক বৃদ্ধ রেস্টুরেন্টের ভেতর ঢুকে ম্যানেজারকে বলল, ‘আজ বিশ্বকাপের ফাইনাল, আমার নাতিটা ফুটবল খেলা খুব ভালোবাসে। ওকে যদি আজ বিকেলটা ছুটি দিতেন, তাহলে খুব ভালো হতো। আমরা দুজন একসঙ্গে বসে খেলা দেখতে পারতাম।’
ম্যানেজার বলল, ‘দুঃখিত, সেটা কোনোভাবেই সম্ভব নয়। ও তো আপনাকে কবর দিতে সারা দিনের জন্য ছুটি নিয়ে গেছে।’


23) দুলাভাই তো এখনও বাসায় ফিরলো না

আপা এত রাত হয়ে গেল দুলাভাই তো এখনও বাসায় ফিরলো না । কোন মেয়ের সাথে আবার ইটিস পিটিস করে না তো ???
বউ : চুপ কর বেয়াদব মেয়ে । সব সময় খালি নেগেটিভ চিন্তা ভাবনা । লোকটাতো কোন গাড়ির নীচে পড়ে এক্সিডেন্টও করতে পারে !!!


24) আপনার "WIFE" কে ব্যবহার করেছি

এক লোকের ফোনে ম্যাসেজ এলো.....
"সরি স্যার, আমি আপনার "WIFE" কে ব্যবহার করেছি। দিন রাত যখনই সময় পেয়েছি, তখনই ব্যবহার করেছি, বিশেষ করে আপনি যখন বাড়ি থাকেন না। যতটা ব্যবহার আমি করেছি ততটা বোধহয় আপনিও করতে পারেন নি। কিন্তু, আমি এখন আমার ভুলের জন্যে খুবই লজ্জিত। পারলে আমাকে ক্ষমা করে দেবেন।"
ম্যাসেজটা পড়ে লোকটি খুব রেগে গেল..., সে রিভালবার বার করে তার বৌকে গুলি করে মেরে দিল। কিছুক্ষণ পর লোকটির আবার ম্যাসেজ এলো.....
"সরি স্যার, ভুল হয়ে গেছে, "WI FI" লিখতে গিয়ে "WIFE" লিখে ফেলেছি ।


25) পরীক্ষার হলে বসে বসে

মা : নালায়েক! তুই আবার ফেল করেছিস? পাশের বাসার রুমকীকে দেখ, কত্ত ভালো রেজাল্ট করেছে ও!
ছেলে : ওকে আর নতুন করে কী দেখব? পরীক্ষার হলে বসে বসে ওকে দেখছিলাম বলেই তো আজ এই দশা!


26) সত্য এবং মিথ্যার মধ্যে পার্থক্য-

বলুন দেখি, সত্য এবং মিথ্যার মধ্যে পার্থক্য কী?
সত্য বলে ফেললেই হয়। কিন্তু মিথ্যা বলার পর মনে রাখতে হয়!


27) ছোট বউয়ের সাথে প্রেম করে বড় বউকে বিয়ে

এক কৃষকের দুই বউ। পাশের বাড়ির এক যুবক দুই বউয়ের প্রেমে পড়ে গেল। বড় বউয়ের কাছে প্রেম নিবেদন করতেই বড় বউ তাকে ঝাঁটাপেটা করে তাড়ালো। এরপর সে ছোট বউকে প্রেম নিবেদন করলো। ছোট বউ সঙ্গে সঙ্গে রাজি। চলতে লাগলো তাদের গোপন অভিসার। পাড়া পড়শীরাও জেনে গেল ব্যাপারটা। তো একদিন কৃষকটা মারা গেল। আর যুবকটি বিয়ে করে ফেললো বড় বউকে। সবাই অবাক। ছোট বউয়ের সাথে প্রেম করে বড় বউকে বিয়ে করার কারন জিজ্ঞাসা করলো সবাই। তখন যুবক বিজ্ঞের মতো সবাইকে জানালো— "পরপুরুষকে ঝাটা মারতে পারে এমন বউই তো দরকার।"

* * * এসংক্রান্ত আরও মজার কৌতুক =>> * * *


* * * Anupamasite-এ আপনাকে স্বাগতম। আপনার পছন্দমত যে কোন ধরনের লেখা পোস্ট করতে এখানে ক্লিক করুন।   আপনাদের পোস্ট করা লেখাগুলো এই লিংকে আছে, দেখতে এখানে ক্লিক করুন। ধন্যবাদ * * *

জ্ঞানই শক্তি ! তাই- আগে নিজে জানুন , শেয়ার করে প্রচারের মাধ্যমে অন্যকেও জানতে সাহায্য করুন।

Say something

Please enter name.
Please enter valid email adress.
Please enter your comment.